• সোমবার   ০১ জুন ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৮ ১৪২৭

  • || ০৯ শাওয়াল ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
সীমিত আকারে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার নির্দেশনা খাদ্য উৎপাদন আরও বাড়াতে সব ধরনের প্রচেষ্টা চলছে: কৃষিমন্ত্রী সারা দেশকে লাল, সবুজ ও হলুদ জোনে ভাগ করা হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ২৩৮১ জনের করোনা শনাক্ত পুরোপুরি স্বাস্থ্যবিধি মেনে ট্রেন চলছে: রেলমন্ত্রী দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় ২৫৪৫ জনের করোনা শনাক্ত, মৃত্যু ৪০ জন বাস ভাড়া যৌক্তিক সমন্বয়, প্রজ্ঞাপন আজই: ওবায়দুল কাদের এখনই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলবো না: প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সে এসএসসির ফল প্রকাশ করলেন প্রধানমন্ত্রী আগামীকাল ১২টার পরিবর্তে ১১টায় প্রকাশ হবে এসএসসির ফল করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ২৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৭৬৪ পদ্মাসেতুর সাড়ে ৪ কি.মি. দৃশ্যমান, বসল ৩০তম স্প্যান পদ্মা সেতুর ৩০তম স্প্যান বসছে আজ একদিনে সর্বোচ্চ আড়াই হাজার শনাক্ত, মৃত্যু ২৩ জনের বিকেল ৪টার মধ্যে বন্ধ করতে হবে দোকান-শপিংমল দেশে ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত ২ হাজার ছাড়ালো, মৃত্যু ১৫ স্বাস্থ্যবিধি মেনে ৩১ মে থেকে গণপরিবহন চালুর সিদ্ধান্ত দেশে একদিনে নতুন শনাক্ত ১৫৪১, মৃত্যু ২২ জীবন বাঁচাতে জীবিকাও সচল রাখতে হবে: কাদের ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ১৮৭৩ জন শনাক্ত, মৃত্যু আরও ২০ জনের
৪২

করোনা প্রতিরোধে সাংগঠনিকভাবে কাজ করছে আ. লীগ

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ৩০ মার্চ ২০২০  

সরকারি উদ্যোগের পাশাপাশি সাংগঠনিকভাবেও করোনা প্রতিরোধে কাজ করছে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ। দলটির পক্ষ থেকে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করা হয়েছে। বিনামূল্যে মাস্ক, স্যানিটাইজারসহ করোনা প্রতিরোধমূলক সরঞ্জাম সরবরাহ করা হয়েছে। এর পাশাপাশি প্রত্যেক নেতাকর্মীকে যার যার এলাকায় সচেতনতা ও সতর্কতামূলক কর্মসূচি চালিয়ে যেতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। মূল দলের পাশাপাশি সহযোগী সংগঠনগুলোও এসব কর্মসূচি চালিয়ে যাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়া করোনাভাইরাসে এ পর্যন্ত ছয় লাখ ৭৮ হাজারের বেশি মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। এতে এ পর্যন্ত প্রায় ৩২ হাজার মানুষের মৃত্যু হয়েছে। বাংলাদেশেও করোনার প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। এখন পর্যন্ত দেশে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৮ জন, যার মধ্যে পাঁচ জন মারা গেছেন।

করোনাভাইরাস মোকাবিলায় রাজনৈতিক দল হিসেবে মাঠে কাজ করছে আওয়ামী লীগ। এর অংশ হিসেবে দেশব্যাপী জনগণকে সতর্ক করতে প্রচারপত্র বিলি করছে দলটি। গত শুক্রবার (২১ মার্চ) রাজধানীর ধানমন্ডিতে ঢাকা মহানগর নেতাদের হাতে হ্যান্ডবিল তুলে দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে এই কর্মসূচির সূচনা করেন দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। পরে ওই এলাকায় সাধারণ জনগণের হাতে সতর্কতামূলক লিফলেট বিতরণ করেন তিনি। গত শনিবার (২২ মার্চ) বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউ এলাকায়ও একই কর্মসূচিতে অংশ নেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের সেদিন নেতাকর্মীদের যার যার এলাকায় কাজ করতে নির্দেশ দেন। এর আগে ১৭ মার্চ বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনে আজিমপুর এলাকায় করোনা প্রতিরোধ সামগ্রী বিতরণ করে আওয়ামী লীগের ত্রাণ বিষয়ক উপ-কমিটি। দলটির ত্রাণ ও পুনর্বাসন বিষয়ক সম্পাদক সুজিত নন্দী রায়ের উদ্যোগে এ কর্মসূচি পালিত হয়। এছাড়া আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেনের নেতৃত্বে রাজধানীতে করোনা প্রতিরোধ সামগ্রী বিতরণ করা হয়। বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপ-কমিটির উদ্যোগে দেশের বিভিন্ন জায়গায় এ কার্যক্রম চলছে।

এদিকে প্রবাসী অধ্যুষিত জেলা মাদারীপুরের করোনাভাইরাস প্রতিরোধে লকডাউন করা এলাকায় ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করছে 'বাহাউদ্দিন নাছিম ফাউন্ডেশন'। এক সপ্তাহ ধরে মাদারীপুরের বিভিন্ন এলাকায় করোনাভাইরাস প্রতিরোধে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও মাস্ক বিতরণ করছে ফাউন্ডেশনটি। এর পাশাপাশি চলতি সপ্তাহে মানুষের মধ্যে খাদ্যসামগ্রী, হাত ধোয়ার সাবানসহ বিভিন্ন সামগ্রী বিতরণ করবে সংগঠনটি। এ কার্যক্রম মাদারীপুর জেলা শহর থেকে শুরু হবে বলে জানিয়েছেন সংগঠনটির চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাসিম।

তিনি জানান, এখানে চাল ডাল সাবান এগুলো দরিদ্র, ভূমিহীন ও দিনমজুর মানুষের মাঝে বিতরণ করা হবে। প্রত্যন্ত এলাকায় এই উপকরণ পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা হবে। এ মুহূর্তে মাদারীপুরে হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরি করে দরিদ্র মানুষের মাঝে বিতরণ করা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

রাজধানী ঢাকা ছাড়াও গ্রাম-ইউনিয়ন-উপজেলা-জেলা পর্যায়ে করোনা প্রতিরোধে তৃণমূল নেতাদের প্রতি নির্দেশনা পাঠিয়েছে দলটি। করোনা নিয়ে গুজব তৈরি করে কেউ যাতে জনমনে আতঙ্ক তৈরি করতে না পারে, সে বিষয়ে সরকারের পাশাপাশি আওয়ামী লীগও নজরদারি করছে।

জানতে চাইলে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম বলেন, দলের পক্ষ থেকে করোনা প্রতিরোধে সচেতনতা তৈরি করার জন্য ব্যাপকভাবে প্রচারণা চালানো হয়েছে। মূল দল, অন্যান্য সংগঠন এবং নেতাকর্মীদের পাশাপাশি অন্যান্য ব্যানারেও মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার এবং সীমিত পরিসরে খাবারও সরবরাহ করা হচ্ছে।

এদিকে সহযোগী সংগঠনগুলোও করোনা প্রতিরোধে কাজ করে যাচ্ছে। যুবলীগ বিনামূল্যে মাস্ক সরবরাহ করছে। সচেতনতা তৈরিতে ডিজিটাল প্রচারণা চালাচ্ছে তারা। স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক আফজালুর রহমান বাবু জানান, সংগঠনের পক্ষ থেকে সতর্কতামূলক লিফলেট বিতরণ করা হচ্ছে। করোনা প্রতিরোধী সরঞ্জাম বিতরণ করছে। এছাড়া মূল দলের কর্মসূচিতেও সক্রিয় অংশগ্রহণ করছে।

ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় ও সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য জানান, কেউ যাতে মানবিক এই সংকটের সুযোগ নিয়ে গুজব তৈরি করে পরিস্থিতি ঘোলাটে করতে না পারে সেদিকে সতর্ক দৃষ্টি রাখা হচ্ছে।

ছাত্রলীগ ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি মেহেদী হাসান এবং উত্তরের সভাপতি ইব্রাহিম হোসেনের নেতৃত্বে রাজধানীর দুই অংশে বিভিন্ন সরঞ্জাম বিতরণ করা হয়েছে। এই দুটি সংগঠনের পক্ষ থেকে সচেতনতামূলক প্রচারণাও অব্যাহত আছে।

বরগুনার আলো
রাজনীতি বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর