বৃহস্পতিবার   ০২ এপ্রিল ২০২০   চৈত্র ১৯ ১৪২৬   ০৮ শা'বান ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
প্রতি উপজেলা থেকে নমুনা সংগ্রহ করার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর মানুষের পাশে না দাঁড়িয়ে সমালোচনা করছে বিএনপি : কাদের দেশে আক্রান্তদের মধ্যে এ পর্যন্ত ২৬ জন সুস্থ : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সেনাবাহিনী কতদিন মাঠে থাকবে সরকার বিবেচনা করবে: সেনাপ্রধান করোনায় খাদ্য ঘাটতি হবে না : কৃষিমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সে বক্তব্য রাখ‌ছেন প্রধানমন্ত্রী আজ সকালে ৬৪ জেলার কর্মকর্তাদের সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর কনফারেন্স পিপিই যেন নষ্ট না হয়, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী করোনা মোকাবিলায় সরকার জনগণের পাশে আছে -প্রধানমন্ত্রী ছুটিতে কর্মস্থল ছাড়া যাবে না : সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসন করোনা সংকটকালে জনগণের পাশে থাকবে আ.লীগ: কাদের আমি করোনায় আক্রান্ত হইনি : স্বাস্থ্যমন্ত্রী বাংলাদেশে ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত নেই : আইইডিসিআর পদ্মা সেতু‌তে বসলো ২৭তম স্প্যান, দৃশ্যমান হলো ৪ হাজার ৫০ মিটার সব পোশাক কারখানা বন্ধের নির্দেশ পবিত্র শবে বরাত ৯ এপ্রিল অতি প্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে যাবেন না : প্রধানমন্ত্রী জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী মুক্তি পেলেন খালেদা জিয়া সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী
১০

করোনা মোকাবিলায় ‘হ্যান্ড স্যানিটাইজার’ উৎপাদন শুরু করেছে ঢাবি

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১৪ মার্চ ২০২০  

করোনাভাইরাস থেকে বাঁচতে ‘হ্যান্ড স্যানিটাইজার’ উৎপাদন শুরু করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ফার্মেসি অনুষদের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। শিক্ষার্থীদের বিনামূল্যে দেয়ার জন্য নিজেদের ফান্ড থেকে ‘হ্যান্ড স্যানিটাইজার’ উৎপাদন শুরু করেছেন তারা। 

ক্লিনিক্যাল ফার্মেসি ও ফার্মাকোলজি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক আব্দুল মুহিত বলেন, শুক্রবার প্রাথমিকভাবে ২০০ বোতল স্যানিটাইজার উৎপাদন করা হয়েছে। শনিবার আরো ২০০ বোতল উৎপাদন করা হবে। প্রাথমিকভাবে উৎপাদিত এসব স্যানিটাইজার নিজস্ব বিভাগের শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও কর্মচারীদের মাঝে বিতরণ করা হবে।

অধ্যাপক আব্দুল মুহিত আরো বলেন, করোনাকে সামনে রেখে বাজারে ব্যবসায়ীরা একেবারেই কৃত্রিম সঙ্কট তৈরি করে ব্যবসা করছে। এটাকে মূলত প্রতিহত করার জন্যই আমরা আমাদের ল্যাবের স্বল্প পরিসরে নিজেদের ফান্ডিং যতটুকু ছিল তা দিয়ে কিছু ‘হ্যান্ড সানিটাইজার’ উৎপাদন করেছি।

অধ্যাপক মুহিত বলেন, প্রশাসনিকভাবে কোনো সাহায্য চাইনি। ভিসি স্যারের সঙ্গে কথা বলব। সহযোগিতা পেলেতো অবশ্যই ভালো হয়। যদি তিনি আমাদের কোনো ফান্ডিংয়ের ব্যবস্থা করে দিতে পারেন তাহলে আরো বড় পরিসরে কাজটি নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করব।

ঢাবি ভিসি অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান বলেন, করোনা নিয়ে সবাইকে সতর্ক থাকার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। তাই সচেতন থাকতে হবে, আতঙ্কিত হওয়া যাবে না। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ সেমিনার আয়োজনের মাধ্যমে সচেতনতা তৈরি করছে। শিক্ষকেরা যখন আমার কাছে এসেছিলেন তখন আমি করোনা প্রতিরোধে কিছু করা যায় কিনা দেখতে বলেছি। ‘হ্যান্ড স্যানিটাইজার’ তৈরি অবশ্যই ভালো উদ্যোগ।

বরগুনার আলো
এই বিভাগের আরো খবর