সোমবার   ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯   আশ্বিন ৭ ১৪২৬   ২৩ মুহররম ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
কাজাখস্তান গেলেন স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী দিনে ১০ হাজারের বেশি কনটেইনার হ্যান্ডলিং হচ্ছে বন্দরে বিএনপির ৩ নেতাকে নিয়মিত টাকা দিতেন জি কে শামীম এক মাসে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে ২০ লাখ : বিটিআরসি সেই ডিসির নারী কেলেঙ্কারির সত্যতা বাচ্চাকে মারধর করায় থানা ঘেরাও হনুমানের! বাচ্চাকে মারধর করায় থান জাতীয় নারী দাবায় শীর্ষস্থানে রানী হামিদ ইউজিসির কাঠগড়ায় পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৪ ভিসি ক্যাসিনোতে মিলল ধর্মীয় উপাসনা সামগ্রী! বিজয়নগর সায়েম টাওয়ার থেকে ১৭ জুয়ারী আটক ১৩ নেপালিকে মোটা অংকের বেতনে রাখা হয় জুয়া চালাতে স্পা সেন্টার থেকে আটক ১৬ নারী, ৩ পুরুষ আরও ১০ লক্ষ তরুণ-তরুণীর কর্মসংস্থান করা হবে- পলক আবুধাবি থেকে নিউইয়র্কের পথে প্রধানমন্ত্রী অজুহাতে কাজ আটকে রাখলে কঠোর ব্যবস্থা: গণপূর্তমন্ত্রী ব্যাংক নোটের আদলে টোকেন ব্যবহার করা যাবে না ঢাকা আসছেন বিশ্ব ব্যাংকের ভাইস প্রেসিডেন্ট ও জাতিসংঘের দূত ৭০ বছরে আ’লীগ অনেক চড়াই-উতরাই পার করেছে: পলক খিলক্ষেতে বোমা হামলা: ৫ জেএমবির ১২ বছরের দণ্ড আরামবাগ-দিলকুশা ক্লাবে জুয়ার সরঞ্জাম উদ্ধার
৭৫১

কুকুরের মুখ থেকে নবজাতককে বাঁচালেন পুলিশের এসআই

প্রকাশিত: ২১ আগস্ট ২০১৯  

চট্টগ্রামে কুকুরের মুখ থেকে এক নবজাতককে উদ্ধার করলেন মেট্রোপলিটন পুলিশের এক কর্মকর্তা। নগরীর বাদামতলী মোড় এলাকায় শিশুটিকে কুকুরের কামড়াকামড়ির হাত থেকে রক্ষা করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। শিশুটি শঙ্কামুক্ত বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক।


ওই নবজাতক জানে না পৃথিবীতে আসার পর কি নির্মম পরিস্থিতির মুখোমুখি হতে হয়েছিলো তাকে। পৃথিবীটা তার জন্য যে কতটুকু বাসযোগ্য সে বুঝেছে চোখ খোলার পর পরই। যদিও হাসপাতালে ভর্তির পর এক মা মমতায় বুকে আগলে রেখে মানবিক হাত বাড়িয়েছেন।

মঙ্গলবার (২০ আগস্ট) ভোরে চট্টগ্রাম নগরীর বাদামতলী ক্রসিং এলাকায় ফুটপাতের ৪ থেকে ৫টি কুকুর কি যেন টানাটানি করছে এমন দৃশ্য দেখে ছুটে যান ডবলমুরিং থানার এসআই মোস্তাফিজুর রহমান। নবজাতকে ঘিরে কুকুরের ঝাঁক কামড়াকামড়ি করছে এমন দৃশ্য দেখে তাকে উদ্ধার করে। পরে দ্রুত তাকে প্রথমে নগরীর চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে ভর্তি করে। মানসিক ভারসাম্যহীন মাকে খুঁজে দুজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে মানবিক এ পুলিশ মোস্তাফিজ।

ডবলমুরিং থানার এসআই মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, বাচ্চার মাকে খুঁজে বের করলাম। মানসিক ভারসাম্যহীন তিনি। বাচ্চার কথা জিজ্ঞেস করায় বার বার বাচ্চার দিকে তাকাচ্ছেন। তখনই বুঝলাম বাচ্চাটা তার। পরে তাদেরকে হাসপাতালে নিয়ে আসলাম।

মা ও নবজাতক আশঙ্কামুক্ত হলেও এ বিষয়ে কথা বলতে চাননি হাসপাতালের পরিচালক বা কোনো চিকিৎসক। চট্টগ্রামে শিশু একুশসহ গত ৩ বছরে ৪টির বেশি শিশু রাস্তায় কুড়িয়ে পাওয়ার ঘটনা ঘটে।

এই বিভাগের আরো খবর