• বৃহস্পতিবার   ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ১২ ১৪২৭

  • || ১৩ রজব ১৪৪২

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
সাত কলেজের পরীক্ষা চলবে: শিক্ষা মন্ত্রণালয় কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালে সাধারণ মানুষও চিকিৎসা পাবেন: আইজিপি জনগণ ভালোবেসে আমাদের সরকার গঠনের সু্যোগ দিয়েছে: কাদের সাত কলেজের বিষয়ে সিদ্ধান্ত সন্ধ্যায় বিএনপির অনেক নেতা গোপনে টিকা নিয়েছেন : তথ্যমন্ত্রী ‘পাটের উৎপাদন বাড়াতে বীজ সরবরাহ নিশ্চিত করা হচ্ছে’ দেশে করোনায় ১৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৯৯ কমিশন বাণিজ্যের ধারা থেকে বেরিয়ে আসতে হবে: সেতুমন্ত্রী জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সব ধরনের পরীক্ষা স্থগিত ভবিষ্যতে বাংলাদেশেও তৈরি হবে যুদ্ধবিমান: প্রধানমন্ত্রী দেশে করোনায় ৭ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৬৬ বিশ্ববিদ্যালয়গুলো খুলছে ২৪ মে: শিক্ষামন্ত্রী হল খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত ৫-৬ দিনের মধ্যেই: মন্ত্রিপরিষদ সচিব এক মাসের মধ্যে চালের বাজার স্বাভাবিক হবে: বাণিজ্যমন্ত্রী করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৫, শনাক্ত ৩৫০ এটিএম শামসুজ্জামান আর নেই এখন ঘরে ঘরে মানুষ ডিজিটাল সেবার সুবিধা পাচ্ছে: বাণিজ্যমন্ত্রী সামিসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে করা মামলার আদেশ ২৩ ফেব্রুয়ারি করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ১৫ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৯১ খাদ্যে ভেজালকারীদের কঠোর হাতে দমন করা হবে: প্রধানমন্ত্রী

কুশিয়ারার পানি নিয়ে ভারতের সঙ্গে চুক্তি করতে চায় বাংলাদেশ

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ২৬ জানুয়ারি ২০২১  

কুশিয়ারা নদী থেকে ১৫৩ কিউসেক পানি উত্তোলনের জন্য ভারতের সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) করতে চায় বাংলাদেশ। এছাড়া কুশিয়ারা নদীর পানি রহিমপুর খাল দিয়ে কৃষিকাজে ব্যবহারের জন্য ভারতের যে আপত্তি সেটিও নিষ্পত্তি করতে চায়। আগামী মাসে দুই দেশের পানি সচিব পর্যায়ের বৈঠকে বিষয়টি বিস্তারিত আলোচনা হবে বলে জানা গছে পানি সম্পদ ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্রে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, ৬ ডিসেম্বর যৌথ নদী কমিশনের ওয়ার্কিং গ্রুপের সভায় কুশিয়ারা নদী থেকে পানি উত্তোলন এবং রহিমপুর খাল ব্যবহারের বিষয়টি তোলা হয়েছে। ভারতের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে তারা দ্রুত এ বিষয়ে আসাম রাজ্য সরকারের সঙ্গে আলোচনা করে তাদের অবস্থান জানাবে।

তিনি বলেন, ‘এ বিষয়টি আমরা অত্যন্ত গুরুত্ব দিচ্ছি। কারণ এর ফলে বাংলাদেশের ৫,০০০ হেক্টর জমি সেচের আওতায় আসবে।’

পানি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের একজন কর্মকর্তা বলেন, বাংলাদেশ যে পরিমাণ পানি উত্তোলন করতে চাইছে সেটি শুকনো মৌসুমে কুশিয়ারা নদীর মোট প্রবাহের ১০ শতাংশেরও কম। ফলে এই পানি উত্তোলনে নদীর কোনও ক্ষতি হবে না। ভারত ইতোমধ্যে ১০০ কিউসেকের বেশি পানি কুশিয়ারা থেকে উত্তোলন করছে বলে তিনি জানান।

ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘এ মুহূর্তে কুশিয়ারা নদীর পানি বণ্টন নিয়ে কোনও আলোচনা হচ্ছে না। যতক্ষণ পর্যন্ত না আলোচনা হয়ে একটি ঐক্যমতে পৌঁছানো যাচ্ছে ততক্ষণ পর্যন্ত একটি অন্তবর্তীকালীন ব্যবস্থার জন্য সমঝোতা স্মারকের প্রস্তাব করেছে বাংলাদেশ।’

রহিমপুর খাল প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এই খালটি প্রায় ৫০ মিটার বর্ধিত খনন করে কুশিয়ারার পানি দিয়ে ৫,০০০ হেক্টর জমি সেচের আওতায় আনার পরিকল্পনা আছে সরকারের। কিন্তু এটি করতে ভারতের বর্ডার সিকিউরিটি ফোর্স বাধা দিচ্ছে।

তিনি বলেন, বিএসএফ জানিয়েছে রহিমপুর খালটি সীমান্তের ১৫০ গজের মধ্যে এবং এক্ষেত্রে উপর মহলের অনুমতি ছাড়া এখানে খাল খনন করা যাবে না।

ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘যে পরিমাণ পানি উত্তোলন করার বিষয়টি আলোচনা হচ্ছে সেটি নদীর জন্য ক্ষতিকারক নয়। এটি নিয়ে তেমন মতবিরোধ নেই। কিন্তু রহিমপুর খালটির ঝামেলা দ্রুত নিষ্পত্তি করা গেলে বাংলাদেশের জন্য ভালো হবে। আশা করছি ২৬ মার্চ বাংলাদেশ ও ভারতের শীর্ষ সম্মেলনের আগে বিষয়টি নিষ্পত্তি হবে।’

 

বরগুনার আলো