শুক্রবার   ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১৫ ১৪২৬   ০৪ রজব ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ বঙ্গবন্ধু অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ দিয়েছেন : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মশা যেন ভোট খেয়ে না ফেলে, নতুন মেয়রদের প্রধানমন্ত্রী তাপস-আতিককে শপথ পড়ালেন প্রধানমন্ত্রী আমার কাছে রিপোর্ট আসছে, কাউকে ছাড়ব না : প্রধানমন্ত্রী দ্বিতীয় কিস্তির ২৭ কোটি ৬০ লাখ টাকা বিটিআরসিকে দিল রবি মাধ্যমিক পর্যন্ত বিজ্ঞান বাধ্যতামূলকের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ওপর নজরদারি বাড়াতে বললেন প্রধানমন্ত্রী বরগুনায় ওয়ারেন্ট ভুক্ত দুই আসামী গ্রেপ্তার আজকের স্বর্ণপদক প্রাপ্তরা ২০৪১ এর বাংলাদেশ গড়ার কারিগর যে কোন অর্জনের পেছনে দৃঢ় মনোবল এবং আত্মবিশ্বাস গুরুত্বপূর্ণ ‘প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক’ পেলেন ১৭২ শিক্ষার্থী আজ ১৭২ শিক্ষার্থী প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক পাচ্ছেন অশান্ত দিল্লিতে কারফিউ, নিহত ১৭ পিকে হালদারসহ ২০ জনের ব্যাংক হিসাব জব্দের আদেশ বহাল ৭ মার্চ জাতীয় দিবস ঘোষণা করে হাইকোর্টের রায় ১৪ দিনেই ভালো হচ্ছেন করোনা রোগী : আইইডিসিআর মুশফিক-নাঈমে ইনিংস ব্যবধানে দূর্দান্ত জয় টাইগারদের পিলখানা ট্র্যাজেডি দিবস আজ রিফাত হত্যা মামলার আসামি সিফাতের বাবা গ্রেফতার
১১৫

‘তাহিয়্যাতুল অজু’র নামাজ গুনাহ মুছে দেয়

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯  

সাক্ষাতে অভিবাদন জানানো ইসলামের সৌন্দর্য। মুমিনরা একে-অন্যকে সালাম-মুসাফাহার মাধ্যমে অভিবাদন জানায়। অনুরূপ আমলের মাধ্যমেও কিছু বিষয়কে অভিবাদন জানানো হয়। মসজিদে প্রবেশ করে ‘তাহিয়্যাতুল অজু’র দুই রাকাত নামাজ আদায় মসজিদকে অভিবাদন জানানোর মাধ্যম। আবার তাওয়াফের মাধ্যমে পবিত্র কাবাঘরকে অভিবাদন জানানো হয়। এরকম অনেক অভিবাদন রয়েছে।

‘তাহিয়্যাতুল অজু’র নামাজ কী?
পবিত্রতার জন্য আমরা অজু করি। এই অজুরও অভিবাদন-পদ্ধতি রয়েছে। প্রিয়নবী (সা.) আমাদের তা শিখিয়েছেন। এটি রাসুল (সা.) সুন্নত। তাহিয়্যাতুল অজু বা অজুর অভিবাদন হলো দুই রাকাত নামাজ। এ নামাজের মাধ্যমে বান্দার গুনাহ মাফ হয় এবং মর্যাদা বৃদ্ধি পায়।

‘তাহিয়্যাতুল অজু’র মাধ্যমে গুনাহ মাফ হয়
ইসলামের তৃতীয় খলিফা উসমান (রা.)। একদিন তিনি অজুর পানি চাইলেন। অজু শুরু করে—তিনবার সুন্দর করে দুই হাতের কব্জি পর্যন্ত ধুলেন। তারপর তিন বার কুলি করলেন। নাকে পানি দিয়ে নাক পরিষ্কার করলেন। এরপর তিন বার চেহারা ধুলেন। দুই হাতের কনুই পর্যন্ত ভালোভাবে তিনবার ধুলেন। তারপর মাথা মাসেহ করলেন এবং টাখনু পর্যন্ত পা তিনবার ধৌত করলেন। এরপর বললেন, রাসুলুল্লাহ (সা.) বলেছেন, ‘যে ব্যক্তি এভাবে (সুন্দর করে) অজু করবে, তারপর দুই রাকাত নামাজ আদায় করবে, যাতে (দুনিয়ার) কোনো খেয়াল করবে না, তার পেছনের সকল (ছগিরা) গুনাহ মাফ করে দেওয়া হবে।’ (বুখারি, হাদিস: ১৫৯; মুসলিম, হাদিস: ২২৬)

‘তাহিয়্যাতুল অজু’র মাধ্যমে মর্যাদা বৃদ্ধি পায়
নামাজের মাধ্যমে শুধু গুনাহই মাফ হয় না। বরং এ আমলের দ্বারা মর্যাদাও বৃদ্ধি পায়। একদিন ফজরের নামাজের সময় বেলাল (রা.)-কে নবী (সা.) বললেন, ‘বেলাল! আমাকে বল দেখি, ইসলামে দাখেল হওয়ার পর থেকে তোমার কোন্ আমলটি তোমার কাছে (সওয়াবের আশার দিক থেকে) সবচেয়ে উত্তম বলে মনে হয়? কারণ, আমি জান্নাতে আমার সামনে সামনে তোমার জুতার আওয়াজ শুনেছি।’

বেলাল (রা.) বললেন, ‘তেমন কোনো আমল আমার নেই; যার দ্বারা আমি (বিপুল সওয়াবের) আশা করতে পারি। তবে দিবা-রাত্রির যখনই অজু করি; তখনই সেই অজুর মাধ্যমে যে কয় রাকাত সম্ভব হয়, নামাজ আদায় করি।’ (বুখারি, হাদিস: ১১৪৯; মুসলিম, হাদিস: ২৪৫৮)

অন্যান্য আমলের পাশাপাশি এই আমলেও যত্ন নেওয়া উত্তম। মাফ হয় ও মর্যাদা বৃদ্ধির পাশাপাশি রাসুল (সা.)-এর সুন্নতের উপরও আমল হয়। আল্লাহ আমাদের তাওফিক দান করুন।

বরগুনার আলো
এই বিভাগের আরো খবর