রোববার   ২৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১১ ১৪২৬   ২৮ জমাদিউস সানি ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
পতাকার মর্যাদা ধরে রাখতে সেনা সদস্যদের প্রতি রাষ্ট্রপতির আহ্বান জুয়ার আসর থেকে আটক ২৬ দুই ইউনিভার্সিটিকে ১০ লাখ টাকা করে জরিমানা দৃশ্যমান পদ্মা সেতুর পৌনে চার কিলোমিটার সারা দেশে শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত ইংরেজি উচ্চারণে বাংলা বলার সমালোচনা প্রধানমন্ত্রীর উন্নত দেশ গড়তে বেসরকারি সহযোগিতা প্রয়োজন: পররাষ্ট্রমন্ত্রী মুজিববর্ষে বিএনপিকেও আমন্ত্রণ জানানো হবে: কাদের ভণ্ডপীরসহ ৯ জনের কারাদণ্ড প্রধানমন্ত্রী সব সময় শিক্ষাকে গুরুত্ব দেন: পরিকল্পনামন্ত্রী মুজিব বর্ষে নতুন শিল্প কারখানা স্থাপন করা হবে: শিল্প প্রতিমন্ত্রী আসন্ন সেচ মৌসুমে লোডশেডিংয়ের শঙ্কা নেই : বিদ্যুৎ বিভাগ একুশে পদক হাতে তুলে দিলেন প্রধানমন্ত্রী শহীদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস শুক্রবার একুশে পদক মেধা ও মনন চর্চার ক্ষেত্র সম্প্রসারিত করবে : রাষ্ট্রপতি আজ একুশে পদক প্রদান করবেন প্রধানমন্ত্রী এনামুল বাছিরের পদোন্নতির আবেদন হাইকোর্টে খারিজ ডাকঘর সঞ্চয়ের সুদহার পুনর্বিবেচনা করা হবে : অর্থমন্ত্রী মুঠোফোন প্রতারক জিনের বাদশা গ্রেফতার করোনাভাইরাস নিয়ে গুজবে কান দিবেন না : স্বাস্থ্যমন্ত্রী
৪০

দলীয় কর্মসূচিতে থাকছে না এমপিরা, বিএনপিতে সমালোচনা!

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১০ অক্টোবর ২০১৯  

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া দুর্নীতি মামলায় কারান্তরীণ হওয়ার পর তার মুক্তির দাবিতে নানা কর্মসূচি পালন করছে দলের নেতাকর্মীরা। কিন্তু কোনো কর্মসূচিতেই বিএনপির এমপিদের উপস্থিত না থাকা নিয়ে নতুন করে সমালোচনা শুরু হয়েছে দলের অভ্যন্তরে। অনেকেই এর কারণ খোঁজার চেষ্টা করছেন।

এ যাবৎকালে মানববন্ধন, প্রতীকী অনশন, লিফলেট বিতরণ, বিক্ষোভ মিছিল, সভা-সমাবেশ, বিভাগীয় মহা-সম্মেলনসহ হরেক রকমের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচি চালিয়ে আসছে দলটি। প্রতিটি কর্মসূচিতেই শীর্ষ নেতারা থেকে শুরু করে তৃণমূল পর্যায়ের নেতাকর্মীরা উপস্থিত থাকছেন। দু’একটি কর্মসূচিতে কেউ কেউ অনুপস্থিত থাকলেও বেশিরভাগেই দেখা মেলে সক্রিয় নেতাদের। তবে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের পর থেকেই দলীয় কর্মসূচিতে অনুপস্থিত থাকছেন বিএনপির এমপিরা। বিএনপি নেতারা তাদের এমন নিষ্ক্রিয়তায় হতবাক।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নির্বাচিত বিএনপির এমপিদের এমন আচরণে ক্ষোভ প্রকাশ করে বিএনপি, কৃষক দল, স্বেচ্ছাসেবক দল, মহিলা দলসহ বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের নেতারা বলছেন, বিএনপির হয়ে বেগম খালেদা জিয়ার রাজনৈতিক জনপ্রিয়তাকে ব্যবহার করে এবং ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে এমপি নির্বাচিত হয়েছেন তারা। অন্য একজনকে সংরক্ষিত নারী আসনে মনোনয়ন দিয়ে এমপি হওয়ার সুযোগ দেয়া হয়েছে। যারা এই দল এবং দলের নেত্রীর বদান্যতায় এমপি হয়ে সংসদে গেছেন, সুযোগ-সুবিধা ভোগ করছেন সেই দল ও নেত্রীর মুক্তির ইস্যুতে নীরবতায় ক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা।

এই বিষয়ে নাম প্রকাশ না করার শর্তে মহিলা দলের একজন নেত্রী বলেন, বিএনপির এমপিরা সরকারের অনুগত হয়ে দল বিরোধী কাজ-কর্ম করছেন। দলের নেতাকর্মীরা যেখানে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে রাজপথে আন্দোলন-সংগ্রামে ব্যস্ত সেখানে এমপিরা ব্যস্ত নিজেদের আখের গোছাতে, প্লট নিতে এবং সরকারের কাছে কে কত বেশি পছন্দের তা প্রকাশ করতে। বিষয়গুলো দুঃখজনক।

কৃষক দলের একজন শীর্ষ নেতা বলেন, বেগম জিয়া নির্বাচিত এমপিদের শপথ নেয়ার ব্যাপারে নেতিবাচক সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন। তার সেই মনোভাব বোঝার পরও যারা শপথ নিয়েছেন তাদের কাছে সরকারের দালালি করা ছাড়া আর কিছুই আশা করা যায় না।

বরগুনার আলো
এই বিভাগের আরো খবর