• বুধবার   ২৫ নভেম্বর ২০২০ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১১ ১৪২৭

  • || ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৮, শনাক্ত ২৪১৯ শিক্ষার্থী সাওদা হত্যাকাণ্ডে আসামির যাবজ্জীবন করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৮, শনাক্ত ২০৬০ স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃত করাই বিএনপির গণতন্ত্র: কাদের প্রখ্যাত আলেম পীরজাদা গোলাম সারোয়ার সাঈদী আর নেই মানুষের কঙ্কালসহ গ্রেফতার বাপ্পী তিন দিনের রিমান্ডে শ্রাবন্তীকে কুপ্রস্তাবের অভিযোগে খুলনায় যুবক গ্রেফতার ডিসেম্বরের মাঝামাঝিতে বসবে পদ্মাসেতুর অবশিষ্ট ৪ স্প্যান: কাদের করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২৩৬৪ ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন ২০২১ সালের মধ্যে ১২৯ নতুন ফায়ার স্টেশন: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এএসপি আনিসুল হত্যা মামলা: রিমান্ড শেষে কারাগারে আরও ৪ টিউশন ফি ছাড়া অন্য খাতে অর্থ নিতে পারবে না স্কুল-কলেজ বিএনপির রাজনীতিতে হতাশা আর ব্যর্থতা ভর করেছে: কাদের শাহজালালে যাত্রীর কাছ থেকে ৫ কোটি টাকার স্বর্ণের বার উদ্ধার নেপালের বিপক্ষে সিরিজ জয় বাংলাদেশের বিএনপি বাসে আগুন দিয়ে অবলীলায় মিথ্যা বলছে: তথ্যমন্ত্রী ফাতেহা-ই-ইয়াজদাহম ২৭ নভেম্বর সাবেক ডেপুটি স্পিকার শওকত আলী আর নেই মিথ্যা বলায় পুরস্কার থাকলে প্রথমটি পেতেন ফখরুল: তথ্যমন্ত্রী

পাকিস্তানের চেয়েও এগিয়ে বাংলাদেশ!

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ২৩ জানুয়ারি ২০২০  

টি-টোয়েন্টিতে র‍্যাঙ্কিংয়ের ১ নম্বর দল পাকিস্তান। অন্যদিকে বাংলাদেশের অবস্থান ৯ নম্বরে। তবে একটি জায়গায় এগিয়ে আছে মাহমুদউল্লাহরা। সেটি হলো ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা। অন্যদিকে, রান কিংবা উইকেটে প্রায় সমান অবস্থানে দু’দল।

পরিসংখ্যান বলছে, বাংলাদেশ দলের ১৫ সদস্য মিলে ৩৭০ টি-টোয়েন্টি খেলেছেন, পাকিস্তানের ক্ষেত্রে সংখ্যাটি ৩৫৩। দুই অধিনায়কের অভিজ্ঞতার পার্থক্যটাও দেখার মতো, বাংলাদেশের অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহর থেকে ৯ বছরের ছোট বাবার আজমের বয়স ২৫। তবে রিয়াদের ৮৩ ম্যাচে মাহমুদউল্লাহর রান ১৪৩০ হলে মাত্র ৩৬ ম্যাচে সেটি প্রায় ছুঁ ফেলেছেন বাবর আজম। তার রান ১৪০৫।

দুই দলের দুই অভিজ্ঞ ক্রিকেটার তামিম ইকবাল আর শোয়েব মালিকের বয়সের পার্থক্য ৭। ৭৫ ম্যাচে তামিমের রান ১৬১৩, আর ১১১ ম্যাচে শোয়েবের ২২৬৩। অভিজ্ঞতা বিবেচনায় শোয়েব মালিকই পাকিস্তানের তুরুপের তাস।

দু’দলেই একশোর বেশি স্ট্রাইক রেট আছে ৬ জনের। বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের মধ্যে সবেচেয়ে বেশি স্ট্রাইক রেট লিটন দাসের- ১৩৮। অন্যদিকে, পাকিস্তানের ইফতেখারের স্ট্রাইকরেট ১৪৪। সৌম্যর ৬ উইকেটের সাথে রান যেখানে ৭৯১। সেখানে ইমাদ ওয়াসিমের ৪২ উইকেট; রান ২৬১।

দলের ১৫ জন মিলে বাংলাদেশের মোট রান ৫২৫৪ আর উইকেটে শিকার ১৮৩। বিপরীতে পাকিস্তানের করেছে মোট ৬৩০২ রান আর উইকেট ১৮৭।

পাকিস্তানের সর্বোচ্চ উইকেট শিকারী মোহাম্মদ হাফিজ, অন্যদিকে টাইগার মোস্তাফিজের সংগ্রহ ৫২ উইকেট। স্বাগতিকদের ৪ অভিষেকের বিপরীতে টাইগাররদের নতুন মুখ হাসান মাহমুদ।

বরগুনার আলো