শুক্রবার   ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১৫ ১৪২৬   ০৪ রজব ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
খালেদা জিয়ার জামিন আবেদন খারিজ বঙ্গবন্ধু অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ দিয়েছেন : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মশা যেন ভোট খেয়ে না ফেলে, নতুন মেয়রদের প্রধানমন্ত্রী তাপস-আতিককে শপথ পড়ালেন প্রধানমন্ত্রী আমার কাছে রিপোর্ট আসছে, কাউকে ছাড়ব না : প্রধানমন্ত্রী দ্বিতীয় কিস্তির ২৭ কোটি ৬০ লাখ টাকা বিটিআরসিকে দিল রবি মাধ্যমিক পর্যন্ত বিজ্ঞান বাধ্যতামূলকের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর ওপর নজরদারি বাড়াতে বললেন প্রধানমন্ত্রী বরগুনায় ওয়ারেন্ট ভুক্ত দুই আসামী গ্রেপ্তার আজকের স্বর্ণপদক প্রাপ্তরা ২০৪১ এর বাংলাদেশ গড়ার কারিগর যে কোন অর্জনের পেছনে দৃঢ় মনোবল এবং আত্মবিশ্বাস গুরুত্বপূর্ণ ‘প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক’ পেলেন ১৭২ শিক্ষার্থী আজ ১৭২ শিক্ষার্থী প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক পাচ্ছেন অশান্ত দিল্লিতে কারফিউ, নিহত ১৭ পিকে হালদারসহ ২০ জনের ব্যাংক হিসাব জব্দের আদেশ বহাল ৭ মার্চ জাতীয় দিবস ঘোষণা করে হাইকোর্টের রায় ১৪ দিনেই ভালো হচ্ছেন করোনা রোগী : আইইডিসিআর মুশফিক-নাঈমে ইনিংস ব্যবধানে দূর্দান্ত জয় টাইগারদের পিলখানা ট্র্যাজেডি দিবস আজ রিফাত হত্যা মামলার আসামি সিফাতের বাবা গ্রেফতার
১১৬

প্রতিবন্ধী নারীর সন্তান দত্তক নিল দিন মজুর দম্পতি

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ৫ আগস্ট ২০১৯  

 
বরগুনার তালতলী উপজেলার বারোঘর বাজারে অজ্ঞাত পরিচয়ের মানসিক ভারসাম্যহীন প্রতিবন্ধী নারীর ১৮ দিন বয়সী এক শিশুকে দত্তক নিলেন নিঃসন্তান দিন মজুর দম্পতি। 
সোমবার (৫ আগস্ট) দুপুরে তালতলী উপজেলা প্রশাসনের সহায়তায় ওই সন্তানের লালন পালনসহ অভিভাবকত্ব পান দিন মজুর ওই দম্পতি। 
দিন মজুর দম্পতি হলেন- উপজেলার ছোট বগী ইউনিয়নের ঠাকুর পাড়া গ্রামের বাসিন্দা বশির উদ্দিন (৩৫) ও তার স্ত্রী আসমা আক্তার (৩০)।
তালতলী উপজেলা নির্বাহী অফিসার দীপায়ন দাস শুভ জানান, চলতি বছরের ১৮ জুলাই  বারোঘর বাজারের ফাতিমার বাসায় মানসিক ভারসাম্যহীন ওই নারী একটি কন্যা সন্তান জন্ম দেন।
তিনি বলেন, এ ঘটনার দুই দিন পর স্থানীয় সাংবাদিক হাইরাজ মাঝি আমাকে ঘটনাটি জানান।  ঘটনা শুনেই উপজেলা প্রশাসনের অনেকই বাচ্চাটিকে দেখতে ছুটে যায় এবং আমি বাচ্চাটিকে দুধ খাওয়াতে নগদ কিছু অর্থ সহায়তা দিয়ে শিশুটিকে ফাতিমার হেফাজতেই রেখে আসি।
তিনি আরও জানান, সন্তান পালনে অক্ষম ও অবুঝ এই নারীর শিশুটিকে লালন-পালনে আগ্রহীদের উপজেলা পরিষদে যোগাযোগ করতে বলা হয়। অনেকে আবেদন করলেও ওই দম্পতির সামাজিক ও আর্থিক ও প্রয়োজনীয় সব দিক বিবেচনা করে তালতলী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান রেজবিউল কবির জোমাদ্দার ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তৌফিকুজ্জামান তনুসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের সহযোগিতায় শিশুটিকে দত্তক হিসেবে ওই দম্পতির হাতে শিশু টিকে তুলে দেওয়া হয়। 

শিশুটিকে লালন-পালনসহ অভিভাবকত্ব পাওয়া আসমা আক্তার বলেন, আমার কোনো সন্তান ছিল না। আজ মাতৃত্বের স্বাদ পেলাম। আমি খুশি। আমার সমস্ত ভালোবাসা দিয়ে ওকে মানুষ করব। এখন থেকে সে আমার সন্তান।

একই কথা বলেন আসমার স্বামী। তিনি বলেন, আসমার কোলে শিশু সন্তান তুলে দিতে পেরে আমার ভাল লাগছে। ফুটফুটে শিশু কন্যাটির নাম রাখা হয় তানিয়া বিনতে বশির। 

বরগুনার আলো
এই বিভাগের আরো খবর