শুক্রবার   ১৩ ডিসেম্বর ২০১৯   অগ্রাহায়ণ ২৯ ১৪২৬   ১৫ রবিউস সানি ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
বিশ্বের প্রভাবশালী ১০০ নারীর তালিকায় শেখ হাসিনা আজকের নবীন কর্মকর্তারাই হবেন ৪১ সালের সৈনিক : প্রধানমন্ত্রী ঘুষ-দুর্নীতির বিরুদ্ধে সজাগ থাকার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর বয়স্ক বাবা-মাকে না দেখলে জেল চ্যাম্পিয়নস লিগের শেষ ষোলোতে যারা ফখরুল-রিজভীসহ ১৩৫ জনের বিরুদ্ধে দুই মামলা সবার জন্য উন্মুক্ত থাকছে ‘কনসার্ট ফর ডিজিটাল বাংলাদেশ’ এসক্যাপ অধিবেশনে যোগ দিতে শেখ হা‌সিনা‌কে আমন্ত্রণ রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠির ন্যায়বিচার-নিরাপত্তা দাবি অক্সফামের কৃষি আধুনিক হলেই মাথাপিছু আয় বাড়বে: কৃষিমন্ত্রী মাওলানা ভাসানীর জন্মবার্ষিকী আজ কাল নেতাকর্মীদের সতর্ক থাকতে বললেন ওবায়দুল কাদের ‘ফুড চেইনের মাধ্যমে প্লাস্টিক শরীরে প্রবেশ করছে’ বিশাল জয়ে শুরু কুমিল্লার বঙ্গবন্ধু বিপিএল মিশন টাইম ম্যাগাজিনের ‘পারসন অব দ্য ইয়ার’ গ্রেটা থানবার্গ বিদ্যুৎ খাতের উন্নয়নে ৩০ কোটি ডলার দেবে এডিবি ‘বিদেশগামীদের জন্য চালু হচ্ছে প্রবাসী কর্মী বিমা’ প্রেষণে বদলি রাষ্ট্রীয় ব্যাংকের ৯ জিএম জনতা ব্যাংকের অর্থ আত্মসাৎ: আসামিকে আত্মসমর্পণের নির্দেশ মাদককে দেশ ছাড়া করবো: আইজিপি
২০

বরগুনায় স্কুলছাত্রীকে গণধর্ষণ: তিনজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

প্রকাশিত: ২৭ নভেম্বর ২০১৯  

বরগুনায় এক স্কুল ছাত্রীকে পালাক্রমে ধর্ষণ করায় তিনজনকেই যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও প্রত্যেককে একলাখ টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরো একবছর বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। মঙ্গলবার সকালে বরগুনা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক ও জেলা জজ মোঃ হাফিজুর রহমান এ রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত আসামীরা হলেন বরগুনা সদর উপজেলার ২ নং গৌরিচন্ন ইউনিয়নের খাজুরতলা গ্রামের মোঃ দুলাল ফরাজির চেলে মিলন ফরাজী,একই উপজেলার বদরখালী গ্রামের মনিন্দ্র গোমস্তার ছেলে মনোজ গোমস্তা এবং বদরখালী গ্রামের আঃ কাদের সিকদারের চেলে কালাম সিকদার। মামলা সূত্রে জানা যায়।

একই উপজেলার বদরখালী গ্রামের ওই স্কুলছাত্রীর ভাই দুলাল চন্দ্র মিত্র বরগুনা থানায় ২০১৩ সালের ৮ সেপ্টেম্বর অভিযোগ করেন।তার বোন গৌরিচন্না এন এস হাই স্কুলে অষ্টম শ্রেণীতে পরে,ঘটনার দিন ২২ আগস্ট ২০১৩ দুপুর আনুমানিক আড়াইটার দিকে স্কুল থেকে বাড়ী ফেরার পথে আহ রব মেম্বার বাড়ীর সামনে পৌঁছলে আসামী মিলন ফরাজী ও মনোজ গোমস্তা বাদীর বোনকে ছুরির ভয় দেখিয়ে রব মেম্বরের পানের বরজের উত্তর পাশে নিয়ে জোর করে প্রথমে মিলন ফরাজী ধর্ষণ করে।

ওই সময় মনোজ গোমস্তা ধর্ষনের দৃশ্য মোবাইলে ধারণ করে।অপর আসামী কালাম রাস্তাশ দাঁড়িয়ে পাহারা দিয়ে ধর্ষণে সহায়তা করে এবং শেষে নিজেও ধর্ষণ করে।কিছুদিন পর স্কুল ছাত্রীকে আসামীরা আবারও কুপ্রস্তাবব দিলে তাতে সে রাজি না হলে আসামীরা ধর্ষনের ধারণকৃত দৃশ্য ইন্টারনেটে ও বন্ধুদের মোবাইলে ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দেয় এবং তাই করে।

আর তাই বাদী থানায় মামলা করে।এ মামলাটির তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শ পুলকক চন্দ্র রায় তদন্ত করে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের (৯)৩ ও তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় ওই বছরের ২৪ অক্টোবর আসামীদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

বাদী পক্ষের মামলা পরিচালনা করছেন পিপি মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান ও আসামী পক্ষে আইনজীবী কমল কান্তি দাস।আসামী মিলন বলে এসব মিথ্যা, আমাদের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র,আমরা উচ্চ আদালতে আপিল করবো।

এই বিভাগের আরো খবর