• বৃহস্পতিবার   ০৬ আগস্ট ২০২০ ||

  • শ্রাবণ ২২ ১৪২৭

  • || ১৬ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
সুযোগ আছে, করোনা সংকটেও বিনিয়োগ আনতে হবে: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে জাপানের প্রধানমন্ত্রী আবের ফোন করোনায় আরও ৩৩ মৃত্যু, শনাক্ত ২৬৫৪ কামাল বেঁচে থাকলে সমাজকে অনেক কিছু দিতে পারতো: শেখ হাসিনা সাবেক সেনা কর্মকর্তা সিনহার মাকে প্রধানমন্ত্রীর ফোন করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৫০ মৃত্যু, শনাক্ত ১৯১৮ করোনায় আরও ৪৮ মৃত্যু, শনাক্ত ২৬৯৫ প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে অসচ্ছল গর্ভবতী নারীরা পাবে চার হাজার টাকা ঈদ-বন্যা ঘিরে করোনা সংক্রমণের হার বাড়তে পারে: স্বাস্থ্যমন্ত্রী ট্রাফিক পুলিশ বক্সে বিস্ফোরণ, ‘নব্য জেএমবির সদস্য’ আটক করোনায় আরও ৩৫ মৃত্যু, শনাক্ত ৩০০৯ ১২ কোটি টাকা আত্মসাত করে গ্রেফতার যমুনা ব্যাংকের ম্যানেজার থানায় বিস্ফোরণে জঙ্গি সংশ্লিষ্টতা নেই : পুলিশ ২৪ ঘণ্টায় করোনা শনাক্ত ২৯৬০, মৃত্যু ৩৫ হাতের তালু দিয়ে আকাশ ঢাকা যায় না: বিএনপিকে কাদের দেশে একদিনে ৩৭ মৃত্যু, আক্রান্ত ২৭৭২ সাবরিনার অবৈধ সম্পদ অনুসন্ধানে ৪ জনকে দুদকে জিজ্ঞাসাবাদ করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৫৪, শনাক্ত ২২৭৫ কোরবানি পশুর চামড়ার দাম নির্ধারণ করোনায় ২৪ ঘণ্টায় ৩৮ মৃত্যু, শনাক্ত ২৫২০
৯১

বিশাল জয়ে শুরু কুমিল্লার বঙ্গবন্ধু বিপিএল মিশন

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১১ ডিসেম্বর ২০১৯  

 


বঙ্গবন্ধু বিপিএলের দ্বিতীয় ম্যাচে রংপুর রেঞ্জার্সকে ১০৫ রানের বড় ব্যবধানে হারিয়েছে কুমিল্লা ওয়ারিয়র্স। প্রথমে ব্যাট করে  রংপুরকে ১৭৪ রানের কঠিন লক্ষ্য দেয় কুমিল্লা। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ১৪ ওভারে সবকয়টি উইকেট হারিয়ে  ৬৮ রান তোলে মোহাম্মদ নবীরা। এতে ১০৫ রানের জয় নিয়ে বিপিএলের মিশন শুরু করে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের স্পন্সারকৃত দলটি। 

এর আগে প্রথমে ব্যাট করে কুমিল্লার অধিনায়ক ধাসুন সানাকার ব্যাটিং ঝড়ে নির্ধারিত ওভারে ১৭৩ রান করে ওয়ারিয়র্সরা। এতে মোহাম্মদ নবীদের লক্ষ্য দাঁড়ায় ১৭৪ রান। জবাবে খেলতে নেমে শুরুটা মোটেও ভালো করতে পারেনি রংপুরের ওপেনাররা। 

নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকলে শেষ পর্যন্ত ১৪ ওভারে থামে রংপুরের ইনিংস। এতে প্রথম ম্যাচেই জয়ের দেখা পায় কুমিল্লা। 

এর আগে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ধাক্কা খায় দলটি। ইনিংসের প্রথম বলেই সাজঘরে ফেরেন কুমিল্লার ওপেনার ইয়াসির আলি। এরপর সৌম্য ও রাজাপাকসে মিলে কিছুটা প্রতিরোধ গড়েন। ১৮ বলে ২৬ করে মুস্তাফিজের বলে আউট হন সৌম্য। সঙ্গী বিদায়ে বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি রাজাপাকসেও। ১৩ বলে ১৫ করে সঞ্জিতের বলে প্যাভিলিয়নে ফেরেন তিনি।

এরপর ডেভিড মালান ও সাব্বির রহমান এগিয়ে নিতে থাকেন দলকে। তবে ২৫ রানে মালান আউট হওয়ার পরেই হালকা ধস নামে কুমিল্লার ইনিংসে। ৩ উইকেটে ৮৫ থেকে কুমিল্লা পা দেয় ৬ উইকেটে ৮৯-এ। এ সময় দেড়শ পার করা নিয়েই শঙ্কা দেখা দেয়। 

এমন পরিস্থিতিতে দলের হাল ধরেন অধিনায়ক দাসুন শানাকা। একের পর এক বল আছড়ে ফেলতে থাকেন সীমানার ওপারে। একটি বল তো গ্র্যান্ড স্ট্যান্ড ছাড়িয়ে স্টেডিয়ামের বাইরেই পাঠিয়ে দেন তিনি। শানাকা ঝড়ে লন্ডভন্ড হয়ে যায় রংপুরের বোলিং লাইন আপ। 

শেষ পর্যন্ত ৩১ বলে অপরাজিত ৭৫ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেন শানাকা। তার ইনিংসে চার ছিল মাত্র তিনটি, তবে ছক্কার মার ছিল নয়টি। মূলত এই ইনিংসের জোরেই ভালো স্কোর গড়তে পারে কুমিল্লা। 

রংপুরের হয়ে বল হাতে দুটি করে উইকেট নিয়েছেন সঞ্জিত সাহা, মুস্তাফিজুর রহমান ও লুইস গ্রেগরি। 

বরগুনার আলো
খেলা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর