শনিবার   ২৫ জানুয়ারি ২০২০   মাঘ ১২ ১৪২৬   ২৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
নাসিরুদ্দিন শাহ ও অনুপম খেরের বাকযুদ্ধ আকাশ থেকে মোবাইলে পদ্মাসেতুর ছবি তুললেন প্রধানমন্ত্রী চীনের রহস্যময় ভাইরাস বাদুড় ও সাপ হয়ে মানবদেহে! `শেখ হাসিনার যোগ্য নেতৃত্বের কারণে পরিচয় দিতে গর্ববোধ করি` এত গুণ পুদিনা পাতার? হাঁসের মাংসের কালিয়া দেশ গঠনে ক্যাডেটদের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করতে হবে-সেনাপ্রধান মুজিববর্ষ ঘিরে বিদেশিদের মধ্যেও আগ্রহ বাড়ছে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে পাখি মেলা শিক্ষার অন্যতম উদ্দেশ্য মানবসম্পদ তৈরি: শিক্ষা সচিব মানুষের ভাগ্য পরিবর্তনের লক্ষ্যেই আ’লীগ কাজ করে যাবে-শেখ হাসিনা সোলেইমানি হত্যার নিন্দা জানানোয় কসোভোতে নারীর কারাদণ্ড বরিশাল বোর্ডে এসএসসিতে অনিয়মিত পরীক্ষার্থী ২১ শতাংশ টুঙ্গিপাড়া যাত্রায় টোল পরিশোধ করলো আওয়ামী লীগ বিক্ষোভে জনসমুদ্র বাগদাদ, স্লোগানে কাঁপছে রাজপথ বিএনপি ভোট কারচুপির রাজত্ব সৃষ্টি করেছিল বলেই ইভিএম আনা হয়েছে বরগুনায় জেলেদের জালে ধরা পড়লো ৪শ কেজি ওজনের শাপলাপাতা মাছ বৈশ্বিক স্বাস্থ্যে এখনো ঝুঁকি নয় করোনা ভাইরাস: ডব্লিউএইচও সাকিবকে ছাড়িয়ে নতুন রেকর্ড গড়লেন তামিম বাবার কবরের পাশে বসে প্রধানমন্ত্রীর কোরআন তেলাওয়াত

মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রাথমিক স্কুলে দুপুরের খাবার দেবে সরকার

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১৪ জানুয়ারি ২০২০  

সরকার মুজিববর্ষ থেকে সারাদেশে প্রাথমিক বিদ্যালয়গুলোতে রান্না করা খাবার চালু করতে যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন। তিনি বলেন, সারাদেশের প্রাথমিক স্তরের শিক্ষার্থীদের মাঝে দুপুরে রান্না করা খাবার পরিবেশন করা হবে। ইতোমধ্যে জাতীয় মিড-ডে-মিল নীতিমালা-২০১৯ অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। ফলে শিক্ষার্থীদের ঝরে পড়া রোধ, বিদ্যালয়ে উপস্থিতির হার বৃদ্ধি, শ্রেণি কক্ষে ধরে রাখা এবং পুষ্টিমান বৃদ্ধি পাবে।

প্রতিমন্ত্রী আজ মঙ্গলবার কুড়িগ্রাম জেলার রৌমারী উপজেলায় মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মাঝে একদিন অন্তর রান্না করা খাবার ও উচ্চ পুষ্টিমানসমৃদ্ধ বিস্কুট সরবরাহ কার্যক্রম উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রতিমন্ত্রী বলেন, বর্তমান সরকারের সময় শিক্ষার্থীদের মাঝে উপবৃত্তি, বিনামূল্যে পাঠ্যপুস্তক বিতরণ, উচ্চ পুষ্টিমানসমৃদ্ধ বিস্কুট সরবরাহসহ বিভিন্ন শিক্ষাবান্ধব কর্মসূচি গ্রহণ করার ফলে ঝরে পড়ার হার ১৮ ভাগের নিচে নেমে এসেছে। বিএনপি-জামাত জোট সরকারের সময় শিক্ষার্থীদের ঝরে পড়ার হার ছিল ৫০ ভাগেরও বেশি।

তিনি আরো বলেন, বিদ্যালয়ে গমনোপযোগী প্রায় শতভাগ কোমলমতি শিক্ষার্থীদের ভর্তি নিশ্চিত করা হয়েছে। মানসম্মত শিক্ষা নিশ্চিত করার জন্য শিক্ষক-কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণের সুযোগ দেওয়াসহ বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে।

কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক সুলতানা পারভীনের সভাপতিত্বে মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আকরাম-আল-হোসেন, প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক সোহেল আহমেদ এবং ডব্লিউএফপি'র আঞ্চলিক প্রতিনিধি বিথিকা বিশ্বাস অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন।

পরে শিক্ষার্থীদের মাঝে খিচুড়ি বিতরণের মধ্য দিয়ে প্রতিমন্ত্রী রাজিবপুর ও রৌমারী উপজেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ে স্কুল মিল কার্যক্রম উদ্বোধন করেন।

বরগুনার আলো
এই বিভাগের আরো খবর