• বুধবার   ২৫ নভেম্বর ২০২০ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১১ ১৪২৭

  • || ০৯ রবিউস সানি ১৪৪২

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ২৮, শনাক্ত ২৪১৯ শিক্ষার্থী সাওদা হত্যাকাণ্ডে আসামির যাবজ্জীবন করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৮, শনাক্ত ২০৬০ স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃত করাই বিএনপির গণতন্ত্র: কাদের প্রখ্যাত আলেম পীরজাদা গোলাম সারোয়ার সাঈদী আর নেই মানুষের কঙ্কালসহ গ্রেফতার বাপ্পী তিন দিনের রিমান্ডে শ্রাবন্তীকে কুপ্রস্তাবের অভিযোগে খুলনায় যুবক গ্রেফতার ডিসেম্বরের মাঝামাঝিতে বসবে পদ্মাসেতুর অবশিষ্ট ৪ স্প্যান: কাদের করোনায় আরও ৩০ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২৩৬৪ ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণ মামলায় মজনুর যাবজ্জীবন ২০২১ সালের মধ্যে ১২৯ নতুন ফায়ার স্টেশন: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এএসপি আনিসুল হত্যা মামলা: রিমান্ড শেষে কারাগারে আরও ৪ টিউশন ফি ছাড়া অন্য খাতে অর্থ নিতে পারবে না স্কুল-কলেজ বিএনপির রাজনীতিতে হতাশা আর ব্যর্থতা ভর করেছে: কাদের শাহজালালে যাত্রীর কাছ থেকে ৫ কোটি টাকার স্বর্ণের বার উদ্ধার নেপালের বিপক্ষে সিরিজ জয় বাংলাদেশের বিএনপি বাসে আগুন দিয়ে অবলীলায় মিথ্যা বলছে: তথ্যমন্ত্রী ফাতেহা-ই-ইয়াজদাহম ২৭ নভেম্বর সাবেক ডেপুটি স্পিকার শওকত আলী আর নেই মিথ্যা বলায় পুরস্কার থাকলে প্রথমটি পেতেন ফখরুল: তথ্যমন্ত্রী

মেলা থেকে কেনা বইয়ের যত্ন নিবেন যেভাবে

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

অমর একুশে গ্রন্থমেলায় বইয়ের বিকিকিনি জমে উঠেছে। মেলায় পাওয়া যাচ্ছে সব বয়সীদের বই। মেলায় প্রতিদিনই বিক্রি হচ্ছে প্রচুর বই। কথায় বলে,বইয়ের চেয়ে বেশি বন্ধু আর হয় না। কিন্তু সেই সঙ্গীর ঠিক যত্ন কি আমরা নিতে পারি?

তাই শুধু বই কিনলেই হবে, নিতে হবে বইয়ের যত্ন। অনেক সময় দেখা যায়, আলমারি থেকে বই নামানোর সময় পাতাগুলো কালচে বা হলদেটে হয়ে মচমচে হয়ে গিয়েছে। আবার কখনও পোকায় কেটে দেয় । আসুন জেনে নেই যেভাবে বইয়ের যত্ন নেবেন-

১. ড্যাম্প ধরা দেওয়ালে বইয়ের তাক তৈরি করবেন না। তাহলে বইয়ের পাতা নষ্ট হয়ে যায়। এ ছাড়া দেওয়ালে উঁই পোকা বাসা বাঁধলেও সতর্ক হোন।

২. দেওয়ালের সংস্পর্শে বই না রেখে একটা পাটাতন দিয়ে তা আলাদা করুন। তাক কাঠের হলে সেই কাঠ অবশ্যই সিজন করিয়ে নিন।

৩. বইয়ের পাতা ওল্টানোর সময় আঙ্গুলে থুতু লাগাবেন না। ধীরে সুস্থে বইয়ের পাতা ওল্টান। আর তাড়াহুড়ো করে পাতা ওস্টাতে গেলেও অনেক সময় পাতা ছিঁড়ে যায়।

৪. সম্ভব হলে মলাট দিয়ে বই পড়ুন। পড়ার সুবিধার জন্য তা মুড়ে পড়বেন না। এতে মাঝের সলাই খুলে যাবে।

৫. প্রতি মাসে অন্তত একবার নরম কাপড়ে বইয়ের ধুলো ঝেড়ে রোদে দিন।

৬. বুক মার্ক ব্যবহারের সময় হালকা কোনো উপাদান ব্যবহার করুন। কাগজের টুকরো, পালক, রেশমের ফিতা বা শাটিনের কাপড় ভালো বিকল্প হতে পারে।

৭. আলমারি ও শেলফে বই রাখার সময় দুটো বইয়ের মধ্যে একটু ফাঁক রাখুন। আর সঙ্গে ন্যাপথালিন রেখে দিন।

৮. উঁচু তাক থেকে বই নামানোর সময় ছুঁড়ে নিচে ফেলবেন না। এতে বইয়ের বাঁধাইয়ে চাপ পড়ে তা খুলে যায়।

বরগুনার আলো