• বৃহস্পতিবার   ২৪ জুন ২০২১ ||

  • আষাঢ় ১০ ১৪২৮

  • || ১৩ জ্বিলকদ ১৪৪২

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
জনগণের ভাগ্য নিয়ে যেন কেউ না খেলে: প্রধানমন্ত্রী রোহিঙ্গা প্রত্যাবর্তনে ফের বিশ্ব নেতাদের সহযোগিতা কামনা আজ আওয়ামী লীগের ৭২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী ২৪ জুন শর্তসাপেক্ষে কক্সবাজারে খুলছে হোটেল পরিকল্পিতভাবেই এগোচ্ছি : প্রধানমন্ত্রী আগামী মাস থেকে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের ভাতা ২০ হাজার টাকা: মন্ত্রী মঙ্গলবার থেকে সাত জেলায় লকডাউন, বন্ধ গণপরিবহন সেনাবাহিনীর অপারেশনাল সক্ষমতা বেড়েছে: প্রধানমন্ত্রী একসঙ্গে ঘর পেল ৫৩ হাজার অসহায় পরিবার, বিশ্বে নজিরবিহীন বিশ্ব শান্তি সূচকে সাত ধাপ এগোলো বাংলাদেশ ফিলিস্তিন রাষ্ট্র গঠনে অঙ্গীকার পুনর্ব্যক্ত করলেন রাষ্ট্রপতি বিধিনিষেধ বাড়লো আরো এক মাস দেশের উন্নয়নে যেন কোনোভাবেই সুন্দরবন ক্ষতিগ্রস্ত না হয় রাষ্ট্রপতি কাজাখ রাজধানীতে ওআইসি সম্মেলনে ভার্চুয়ালি যোগ দিবেন এসএসএফের দক্ষতা বৃদ্ধিতে সুযোগ সৃষ্টি করে দিচ্ছি : প্রধানমন্ত্রী একটা করে বনজ, ফলজ ও ভেষজ গাছ লাগান: প্রধানমন্ত্রী করোনায় কোনো রকম রিস্ক না নিতে বলেছেন প্রধানমন্ত্রী এয়ার মার্শাল র‌্যাঙ্ক ব্যাজ পরলেন নতুন বিমানবাহিনী প্রধান স্কুল-কলেজে ছুটি আবার বাড়ল গণতন্ত্রের মুক্তি দিবস ১১ জুন

মেলা থেকে কেনা বইয়ের যত্ন নিবেন যেভাবে

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

অমর একুশে গ্রন্থমেলায় বইয়ের বিকিকিনি জমে উঠেছে। মেলায় পাওয়া যাচ্ছে সব বয়সীদের বই। মেলায় প্রতিদিনই বিক্রি হচ্ছে প্রচুর বই। কথায় বলে,বইয়ের চেয়ে বেশি বন্ধু আর হয় না। কিন্তু সেই সঙ্গীর ঠিক যত্ন কি আমরা নিতে পারি?

তাই শুধু বই কিনলেই হবে, নিতে হবে বইয়ের যত্ন। অনেক সময় দেখা যায়, আলমারি থেকে বই নামানোর সময় পাতাগুলো কালচে বা হলদেটে হয়ে মচমচে হয়ে গিয়েছে। আবার কখনও পোকায় কেটে দেয় । আসুন জেনে নেই যেভাবে বইয়ের যত্ন নেবেন-

১. ড্যাম্প ধরা দেওয়ালে বইয়ের তাক তৈরি করবেন না। তাহলে বইয়ের পাতা নষ্ট হয়ে যায়। এ ছাড়া দেওয়ালে উঁই পোকা বাসা বাঁধলেও সতর্ক হোন।

২. দেওয়ালের সংস্পর্শে বই না রেখে একটা পাটাতন দিয়ে তা আলাদা করুন। তাক কাঠের হলে সেই কাঠ অবশ্যই সিজন করিয়ে নিন।

৩. বইয়ের পাতা ওল্টানোর সময় আঙ্গুলে থুতু লাগাবেন না। ধীরে সুস্থে বইয়ের পাতা ওল্টান। আর তাড়াহুড়ো করে পাতা ওস্টাতে গেলেও অনেক সময় পাতা ছিঁড়ে যায়।

৪. সম্ভব হলে মলাট দিয়ে বই পড়ুন। পড়ার সুবিধার জন্য তা মুড়ে পড়বেন না। এতে মাঝের সলাই খুলে যাবে।

৫. প্রতি মাসে অন্তত একবার নরম কাপড়ে বইয়ের ধুলো ঝেড়ে রোদে দিন।

৬. বুক মার্ক ব্যবহারের সময় হালকা কোনো উপাদান ব্যবহার করুন। কাগজের টুকরো, পালক, রেশমের ফিতা বা শাটিনের কাপড় ভালো বিকল্প হতে পারে।

৭. আলমারি ও শেলফে বই রাখার সময় দুটো বইয়ের মধ্যে একটু ফাঁক রাখুন। আর সঙ্গে ন্যাপথালিন রেখে দিন।

৮. উঁচু তাক থেকে বই নামানোর সময় ছুঁড়ে নিচে ফেলবেন না। এতে বইয়ের বাঁধাইয়ে চাপ পড়ে তা খুলে যায়।

বরগুনার আলো