সোমবার   ২১ অক্টোবর ২০১৯   কার্তিক ৫ ১৪২৬   ২১ সফর ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
আনসার আল ইসলামের চার সদস্য গ্রেফতার প্রধানমন্ত্রী দেশবাসীকে ধৈর্য্যের আহ্বান জানিয়েছেন আঞ্চলিক সহযোগিতাসহ বিভিন্ন ইস্যুতে ইইউ-বাংলাদেশ সভা আজ সৌদিতে সড়ক দুর্ঘটনা: নিহতদের স্বজনদের যোগাযোগের আহ্বান কাউন্সিলর রাজীব ১৪ দিনের রিমান্ডে সোনাদিয়া দ্বীপে শিল্পকারখানা না করতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ রুশ ভাষায় প্রকাশিত বই প্রধানমন্ত্রীর কাছে হস্তান্তর যুবলীগের সম্মেলন কমিটির আহ্বায়ক চয়ন, সদস্য সচিব হারুন ওমর বহিষ্কার, যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তাপস বোরহানউদ্দিনে সংঘর্ষের ঘটনায় তদন্ত কমিটি মাছের খাদ্যে শূকরের উপাদান আছে কিনা পরীক্ষার নির্দেশ স্পিকারের সঙ্গে পাঁচ মার্কিন সিনেটরের সাক্ষাৎ বৃদ্ধাশ্রম নয়, মা-বাবার জায়গা হোক হৃদয়ের মণিকোঠায় মিঠাপানিতে রুপালি ইলিশ ভারতের বিপক্ষে বিশ্ব একাদশে সাকিব-তামিম! হিন্দু ছেলের আইডি হ্যাক, ফেসবুকের কাছে তথ্য চেয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ডিআইজি বজলুরকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ সৈকতঘেরা জাকার্তায় প্রকৃতির অপার সৌন্দর্য নেপাল ভ্রমণের খুঁটিনাটি জাপান সম্রাটের অভিষেকে যোগ দিতে ঢাকা ছেড়েছেন রাষ্ট্রপতি
৪০

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে বিভ্রান্তি ছড়ানো হচ্ছে: দীপু মনি

প্রকাশিত: ২৪ আগস্ট ২০১৯  

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে যা কিছু করা দরকার তা বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এ সরকার করে যাচ্ছে এবং পররাষ্টমন্ত্রণালয় সব ধরনের উদ্যোগ নিয়েছে। এখন আমাদের প্রয়োজন সবার সম্মিলিত উদ্যোগ। 

আমরা বিশ্বের সব দেশের সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করছি, সবার চেষ্টায় মিয়ানমারকে তাদের মত বদলাতে হবে। রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের ক্ষেত্রে কিছু কিছু প্রতিষ্ঠান আছে যারা বিভ্রান্তি ছড়িয়ে রোহিঙ্গাদের নিজ বাসভূমে ফেরত যেতে কিছুটা নিরুৎসাহিত করছে এ রকম খবরও আমাদের কাছে আসছে। সব বিষয় বিবেচনায় নিয়ে সরকার যেভাবে এগিয়ে যাচ্ছে তাতে সহসাই আমরা সফল হতে পারব বলে আশা করছি।

শনিবার (২৪ আগস্ট) সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় চাঁদপুর শহরের পুরান বাজার হরিসভা মেঘনার ভাঙন এলাকা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, চাঁদপুরে মেঘনার ভাঙন প্রতিরোধে ২০০৮ সালের নির্বাচনে আমরা অঙ্গীকার করেছিলাম, ২৯ কিলোমিটার বাঁধ দিয়ে সেই ওয়াদা রক্ষা করেছি। কিন্তু প্রতিবছর বর্ষা মৌসুমে প্রচণ্ড ঘূর্ণায়নের কারণে শহর রক্ষাবাঁধে ভাঙন দেখা দেয়। আমরা এটিকে স্থায়ী রক্ষাবাঁধ দেওয়ার জন্য উদ্যোগ নিয়েছি।

তাৎক্ষণিকভাবে পুরান বাজার হরিসভা এলাকায় ভাঙন প্রতিরোধে ১৩৪ মিটার র্দৈঘ্য এবং ৭০ ফুট প্রস্থে ২৯ হাজার বালু ভর্তি জিইও ব্যাগ ফেলা হয়েছে এবং আরও ১ হাজার ব্যাগ ফেলা হবে। এই কাজে জরুরি ভিত্তিতে ১ কোটি ৩০ লাখ টাকা ব্যয় হয়েছে।

পরে তিনি হরিসভা মন্দিরে শ্রীকৃষ্ণের জন্মাষ্টমীর একটি অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন।

এ সময় তার সঙ্গে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, জেলা প্রশাসক (ভারপ্রাপ্ত) মো. মঈনুল হাসান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান, পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আবু রায়হানসহ আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এই বিভাগের আরো খবর