বুধবার   ১৩ নভেম্বর ২০১৯   কার্তিক ২৯ ১৪২৬   ১৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪১

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
বাংলাদেশ থেকে কেউ বিচ্ছিন্নতাবাদী তৎপরতা চালাতে পারবে না সমুদ্রের ঢেউয়ে ভেসে আসছে কোটি কোটি টাকার কোকেন! বাবার সঙ্গে কঙ্গনার সম্পর্ক নিয়ে মুখ খুললেন সুরাজ! ব্যাটসম্যানদের টেস্ট মেজাজে ব্যাট করতে হবে: দুর্জয় অপরাধী সরকারি কর্মচারী হলেও ব্যবস্থা -প্রধানমন্ত্রী ৫০০ ক্যাম্প-কারাগারে বন্দী চীনের উইঘুর মুসলিমরা সেনাবাহিনীর ৫ ইউনিটকে রেজিমেন্টাল কালার প্রদান মেঘনার চরে আটকে পড়া লঞ্চ যাত্রীদের উদ্ধার আবরার হত্যার বিচার দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে: আইনমন্ত্রী শিক্ষার সঙ্গে খেলাধুলাতেও নজর দিতে হবে: প্রধানমন্ত্রী বিজয়ের অনুষ্ঠানে যুদ্ধাপরাধীদের আমন্ত্রণ না দিতে নির্দেশ আবরার হত্যা: ২৫ জনকে আসামি করে আদালতে চার্জশিট দাখিল র‌্যাব-৮ এর অভিযানে জেএমবি’র আঞ্চলিক কমান্ডার গ্রেফতার শেখ রাসেল টেনিস টুর্নামেন্ট উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী বশেমুরবিপ্রবির সাবেক ভিসি এবার দুদকের মুখোমুখি আবরার হত্যা : ২৫ জনকে আসামি করে চার্জশিট আজ পদ্মায় এ মাসেই বসছে ৪ স্প্যান, শেষ হচ্ছে রেলের স্ল্যাব তৈরির কাজ ২০২১ সালের মধ্যে দেশের সব ঘরে বিদ্যুৎ: প্রধানমন্ত্রী ৭টি বিদ্যুৎকেন্দ্র উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী মীর মশাররফ হোসেনের আজ ১৭২তম জন্মবার্ষিকী

সুপরিকল্পিতভাবে আমরা দেশকে এগিয়ে নিতে চাই: গণপূর্ত মন্ত্রী

প্রকাশিত: ৯ নভেম্বর ২০১৯  

গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন,‘সুপরিকল্পিতভাবে আমরা বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে চাই। দেশে নগরায়ন বা গ্রামের বিস্তার কোনও কিছুই অপরিকল্পিতভাবে করা যাবে না। সব ইমরাত নির্মাণ পরিকল্পনার অধীন হতে হবে। শহরের সুবিধা গ্রামের মানুষের কাছে আমরা পৌঁছাতে চাই।’

শনিবার সকালে (৯ নভেম্বর ২০১৯) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) প্রাঙ্গণে বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব প্ল্যানার্সের উদ্যোগে বিশ্ব নগর পরিকল্পনা দিবস ২০১৯ উপলক্ষে আয়োজিত শোভাযাত্রা উদ্বোধনকালে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

গণপূর্ত মন্ত্রী বলেন, ‘জাতির পিতার সাধনা ছিল একটি সুন্দর দেশ বিনির্মাণের। যেখানে অন্ন, বস্ত্র, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসাসহ সব সুযোগ মানুষের জন্য নিশ্চিত হবে। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে নান্দনিক ও পরিবেশসম্মত আধুনিক বাংলাদেশ বিনির্মাণের জন্য এখন আমরা কাজ করে যাচ্ছি।’

বিশ্ব নগর পরিকল্পনা দিবসের শোভাযাত্রায় মন্ত্রী পরিকল্পনার বাইরে কোনও কিছু হতে পারবে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘একটা মাস্টার প্ল্যানের অধীন সমগ্র বাংলাদেশ এগিয়ে চলবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পরিষ্কার নির্দেশনা হচ্ছে, গ্রামের কৃষি জমি থেকে শুরু করে ব্যক্তিগত জমিতেও ভবন নির্মাণ বা যেকোনও কার্যক্রম চালাতে গেলে সেটা পরিকল্পনা অনুযায়ী হতে হবে। এজন্য আমরা কর্মসূচি গ্রহণ করেছি। আমরা চাই দেশকে সুসংগঠিতভাবে এগিয়ে নিতে। এক্ষেত্রে পরিকল্পনাবিদদের ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশে আধুনিক নির্মাণ বা পরিকল্পিত যেকোনও সৃষ্টির ক্ষেত্রে পকিল্পনাবিদদের ভূমিকা রয়েছে।’

প্রসঙ্গত,  প্রতি বছর বিশ্বব্যাপী টেকসই ও পরিকল্পিত নগরায়ন নিশ্চিত করার প্রত্যয় নিয়ে বিশ্ব নগর পরিকল্পনা দিবস পালন করা হয়। বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব প্ল্যানার্সের উদ্যোগে এবং রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ ও ব্র্যাক-আরবান ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের সহযোগিতায় ‘জেলা ও উপজেলা শহরের জন্য পরিকল্পনা’ প্রতিপাদ্য নিয়ে এ বছর বাংলাদেশে বিশ্ব নগর পরিকল্পনা দিবস ২০১৯ পালিত হচ্ছে।

এই বিভাগের আরো খবর