• বৃহস্পতিবার   ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২৩ ||

  • মাঘ ২০ ১৪২৯

  • || ১০ রজব ১৪৪৪

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
জনগণের ভাগ্য নিয়ে ছিনিমিনি খেলতে আসিনি: প্রধানমন্ত্রী সবাইকে হিসাব করে চলার অনুরোধ প্রধানমন্ত্রীর উন্নত-সমৃদ্ধ দেশ গড়তে কৃষি উন্নয়নের বিকল্প নেই: প্রধানমন্ত্রী ক্রীড়া শিক্ষায় বাস্তবমুখী পদক্ষেপ নিয়েছি: প্রধানমন্ত্রী নিরাপদ খাদ্য নিশ্চিতে কাজ করছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী জনস্বাস্থ্য নিশ্চিতে নিরাপদ ও পুষ্টিকর খাদ্যের বিকল্প নেই জনগণকে বিশ্বাস করি, তারা যদি চায় আমরা থাকবো: প্রধানমন্ত্রী ২০২২-২৩ অর্থবছরে ১০ বিলিয়ন ডলারের বেশি রেমিট্যান্স এসেছে ভাষা-সাহিত্য চর্চাও ডিজিটাল করার পরামর্শ প্রধানমন্ত্রীর রাষ্ট্রপতির সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ মানহীন শিক্ষায় উচ্চশিক্ষিত বেকার বাড়ছে: রাষ্ট্রপতি মুসলিম উম্মাহকে ফিলিস্তিনের পাশে দাঁড়ানোর আহ্বান দেশের ব্যাপক উন্নয়ন বিবেচনায় নিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান গণতান্ত্রিক ধারা অব্যাহত থাকলেই মানুষের উন্নতি হয়: প্রধানমন্ত্রী আমি জোর করে দেশে ফিরেছিলাম, আ.লীগ পালায় না: শেখ হাসিনা আজ ১১ প্রকল্প উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী ১-৭ মার্চ মোবাইলে কল করলেই শোনা যাবে বঙ্গবন্ধুর ভাষণ সন্ত্রাস রুখে দিতে প্রশংসনীয় ভূমিকা রেখে যাচ্ছে পুলিশ সারদায় কুচকাওয়াজে প্রধানমন্ত্রীকে অভিবাদন বাংলাদেশ পুলিশ শান্তি-শৃঙ্খলা রক্ষায় নিরলসভাবে কাজ করছে

কুষ্টিয়ায় স্কুলশিক্ষিকা হত্যায় ভাতিজা নিশাত আটক

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ৮ নভেম্বর ২০২২  

কুষ্টিয়ার আলোচিত স্কুলশিক্ষিকার হত্যাকাণ্ডের ১২ ঘণ্টার মধ্যে মূল রহস্য উদঘাটন ও নিহতের ভাজিতা নওরোজ কবির নিশাতকে (১৯) আটক করেছে কুষ্টিয়া জেলা পুলিশের একটি বিশেষ টাস্কফোর্স টিম।  

পুলিশ জানায়, রবিবার (৭ নভেম্বর) সকাল ১০টার দিকে এই হত্যাকাণ্ডের খবর পেয়ে কুষ্টিয়া জেলা পুলিশের বিভিন্ন ইউনিটের সমন্বয়ে একটি বিশেষ টিম গঠন করেন পুলিশ সুপার খাইরুল আলম। পরে তার নেতৃত্বে ওই বিশেষ টিম হত্যাকাণ্ডে জড়িতকে শনাক্ত ও আটকের জন্য জোর তদন্ত শুরু করে। তারই পরিপ্রেক্ষিতে নিশাতকে শনাক্তের পর আটক করা হয়।

পুলিশ জানায়, নওরোজ কবির নিশাত মাদক ও জুয়ায় আসক্ত। রোকসানা খানম কিছুদিন আগে নিজ ভাইয়ের ছেলে অর্থাৎ তার ভাতিজা নিশাতকে এক লাখ ৯০ হাজার টাকা মূল্যের একটি মোটরসাইকেল কিনে দেন। কিন্তু নিশাত অনলাইনে জুয়া খেলায় হেরে সেই মোটরসাইকেলটি বিক্রি করে দেন। রোকসানা বিভিন্নভাবে নিশাতকে বোঝানোর চেষ্টা করতেন। তারই ধারাবাহিকতায় সোমবার রাতে যখন রোকসানা তার ভাতিজা নিশাতকে বকাবকি করেন, তখনই নিশাত উত্তেজিত হয়ে রান্নাঘর থেকে শিল এনে রোকসানা খানমের মাথায় আঘাত করেন। এতে রোকসানা মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। নিশাত ঘটনাকে ভিন্নখাতে নিতে ঘরবাড়ির আসবাব এলোমেলো করে দেন। হত্যার পর নিশাত বাসার বারান্দার ওপরে থাকা বড় একটি গোলাকার ফুটো দিয়ে বের হয়ে যান এবং পরদিন সকালে রোকসানার মৃত্যুর কথা সবাইকে জানান।

উল্লেখ্য, রোকসানা খানম নিঃসন্তান হওয়ায় তার ছোট ভাইয়ের ছেলে নিশাতকে দ্বিতীয় শ্রেণি থেকে নিজের কাছে রেখে নিজের সন্তানের মতো লালন-পালন করে আসছিলেন। পুলিশ হত্যায় ব্যবহৃত শিলটি ওই বাড়ি থেকে উদ্ধার করেছে।

বরগুনার আলো