• বুধবার ২৬ জুন ২০২৪ ||

  • আষাঢ় ১১ ১৪৩১

  • || ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
ড. ইউনূস কর ফাঁকি দিয়েছেন, তা আদালতে প্রমাণিত: প্রধানমন্ত্রী ‘শেখ হাসিনা দেশ বিক্রি করে না’ অভিন্ন নদীর টেকসই ব্যবস্থাপনা নিয়ে আলোচনা হয়েছে: প্রধানমন্ত্রী দুই দেশের পারস্পরিক সহযোগিতার পথ নিয়ে আলোচনা করেছি সরকার শিক্ষা ব্যবস্থাকে বহুমাত্রিক করেছে: প্রধানমন্ত্রী অনেক হিরার টুকরা ছড়িয়ে আছে, কুড়িয়ে নিতে হবে বারবার ভস্ম থেকে জেগে উঠেছে আওয়ামী লীগ: শেখ হাসিনা টেকসই ভবিষ্যত নিশ্চিত করতে যৌথ দৃষ্টিভঙ্গিতে সম্মত: প্রধানমন্ত্রী গণতন্ত্র রক্ষায় আ. লীগ নেতাকর্মীদের সর্বদা প্রস্তুত থাকার নির্দেশ আওয়ামী লীগের প্লাটিনাম জয়ন্তীতে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা আওয়ামী লীগের প্লাটিনাম জয়ন্তী আজ ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের ১০ চুক্তি সই বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী আগামীকাল দিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে শেখ হাসিনাকে রাজকীয় সংবর্ধনা হাসিনা-মোদী বৈঠক আজ সংলাপের মাধ্যমে বাণিজ্য প্রতিবন্ধকতা দূর করার আহ্বান বাংলাদেশ প্রতিবেশী দেশগুলোর বিনিয়োগকে অগ্রাধিকার দেয় বঙ্গবন্ধুর চার নীতি এবং বাংলাদেশের চার স্তম্ভ সুফিয়া কামালের সাহিত্যকর্ম নতুন প্রজন্মের প্রেরণার উৎস শুক্রবার ভারত যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

মানুষের হাতে জ্বীনের বউ ধরা

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ২৮ আগস্ট ২০২৩  

নিজেকে সর্বরোগের চিকিৎসক পরিচয় দিয়ে সাধারণ মানুষের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগে অঞ্জনা রানী কে (৩৮) এ মাসের কারাদন্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমান আদালত।
জানাগেছে, ভেদরগঞ্জ উপজেলার রামভদ্রপুর ইউনিয়নের পাচালিয়া গ্রামের নকুল কর্মকারে স্ত্রী অঞ্জনা রানী ( অঞ্জু) নিজেকে জ্বীনের বেগম ও কালির সাধক পরিচয় দিয়ে সহজ সরল মানুষে সাথে প্রতারণা করছে এমন অভিযোগের ভিত্তিতে সোমবার(২৮ আগস্ট) সকালে অভিযান চালায় ভেদরগঞ্জ থানা পুলিশ ও ভেদরগঞ্জ উপজেলা প্রশাসন।

এ সময় অভিযোগে সত্যতা পাওয়ায় ভেদরগঞ্জ থানা পুলিশ অঞ্জুকে আটক করে। ভুক্তভোগীদের অভিযোগ, সকল সমস্যা ও রোগের চিকিৎসক, জিন ও কালি সাধনের মাধ্যমে সকল সমস্যার সমাধান করতে পারার কথা বলে অঞ্জনা রাণী কর্মকার ওরফে অঞ্জু।

তার ভিজিট ২৬০০ টাকা থেকে শুরু করে ৫০০০ টাকা করে হাতিয়ে নেয়। এর পরে ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন এর নেতৃত্ব পরিচালিত ভ্রাম্যমান আদালতে দোষী প্রমানিত হওয়ায় তাকে ৩০ দিনের কারাদন্ডের আদেশ দেন।

ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, আমরা ডিজিটাল থেকে স্মার্ট যুগে পদার্পণ করলেও আমাদের সমাজে মানুষের মানসিকতা পরিবর্তন হয়নি। যে কারণে প্রতারিত হচ্ছে। আর হাসেম অঞ্জুরা সুযোগ নিচ্ছে। এদের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে। তবে মানুষ সচেতন না হলে অপরাধ নির্মূল হবে না।

বরগুনার আলো