• বৃহস্পতিবার ২৫ এপ্রিল ২০২৪ ||

  • বৈশাখ ১১ ১৪৩১

  • || ১৫ শাওয়াল ১৪৪৫

বরগুনার আলো
ব্রেকিং:
থাইল্যান্ডের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়লেন প্রধানমন্ত্রী আজ থাইল্যান্ড যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী রাজনৈতিক সম্পর্ক জোরালো হয়েছে ঢাকা ও দোহার মধ্যে বাংলাদেশের বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চলে কাতারের বিনিয়োগের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কাতার আমিরের বৈঠক ঢাকা সফরে কাতারের আমির, হতে পারে ১১ চুক্তি-সমঝোতা জলবায়ু ইস্যুতে দীর্ঘমেয়াদি কর্মসূচি নিয়েছে বাংলাদেশ দেশের সার্বভৌমত্ব রক্ষায় বাংলাদেশ সর্বদা প্রস্তুত : প্রধানমন্ত্রী দেশীয় খেলাকে সমান সুযোগ দিন: প্রধানমন্ত্রী খেলাধুলার মধ্য দিয়ে আমরা দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারি বঙ্গবন্ধুর আদর্শ নতুন প্রজন্মের কাছে তুলে ধরতে হবে: রাষ্ট্রপতি শারীরিক ও মানসিক বিকাশে খেলাধুলা গুরুত্বপূর্ণ: প্রধানমন্ত্রী বিএনপির বিরুদ্ধে কোনো রাজনৈতিক মামলা নেই: প্রধানমন্ত্রী স্বাস্থ্যসম্মত উপায়ে পশুপালন ও মাংস প্রক্রিয়াকরণের তাগিদ জাতির পিতা বেঁচে থাকলে বহু আগেই বাংলাদেশ আরও উন্নত হতো মধ্যপ্রাচ্যের অস্থিরতার প্রতি নজর রাখার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর প্রধানমন্ত্রী আজ প্রাণিসম্পদ সেবা সপ্তাহ উদ্বোধন করবেন মন্ত্রী-এমপিদের প্রভাব না খাটানোর নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর দলের নেতাদের নিয়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানায় শেখ হাসিনা মুজিবনগর দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা

পুলিশের উপর হামলার অভিযোগ, বরগুনার ইউপি চেয়ারম্যান কারাগারে

বরগুনার আলো

প্রকাশিত: ১৭ জুন ২০২৩  

বরগুনা প্রতিনিধিঃ সরকারি কাজে বাধা ও পুলিশের ওপর হামলার অভিযোগে করা মামলায় বরগুনার বেতাগী উপজেলার সড়িষামুড়ি ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান ইমাম হাসান শিপন জোমাদ্দারসহ ৫ জনকে গ্রেপ্তারের পর আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ। মামলার বাদী ও বরগুনা সদর থানার উপপুলিশ পরিদর্শক মো. হেলাল উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেপ্তারকৃত আসামিরা হলেন বেতাগী উপজেলার সড়িষামুড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ইমাম হাসান শিপন জোমাদ্দার, পূর্ব সড়িষামুড়ি গ্রামের খোকন জোমাদ্দার, একই গ্রামের মো. হুমায়ুন কবির, মো. বশির খান ও উত্তর ভোড়া গ্রামের কবির হোসেন খান।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, বেতাগী উপজেলার সড়িষামুড়ি ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান ইমাম হাসান শিপন জোমাদ্দার ও ওই ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মো. ইউসুফ শরিফের মধ্যে ইউপি নির্বাচন কেন্দ্রিক বিরোধের জেরে একাধিক সংঘর্ষ হয়েছে। গত পাঁচ বছর ধরে চলমান সহিংসতায় একজনের নিহত ও উভয়পক্ষের শতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। এ নিয়ে উভয় পক্ষের মধ্যে হত্যাসহ একাধিক মামলা চলছে।

এর ধারাবাহিকতায় ইউসুফ শরিফ তাঁর ছেলে ও কর্মীদের নিয়ে গতকাল বুধবার সকালে একটি মামলায় বরগুনার আদালতে হাজিরা দিতে যাওয়ার সময় বরগুনা সদর উপজেলার গৌরিচ্চন্না এলাকায় পৌঁছালে শিপন জোমাদ্দারের সমর্থকদের বাঁধার মুখে পড়ে। এ সময় উভয় পক্ষ দেশীয় অস্ত্র দিয়ে সংঘর্ষে জড়ায়। খবর পেয়ে বরগুনা সদর থানার উপ পুলিশ পরিদর্শক মো হেলাল উদ্দিনের নেতৃত্বে একটি মোবাইল টিম ঘটনাস্থলে আসে। তাঁরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে উভয় পক্ষকে শান্ত করার চেষ্টা করলে তাঁরা পুলিশের ওপরও হামলা চালায়। পুলিশ পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ২ রাউন্ড টিয়ার সেল ও শটগান দিয়ে ৬ রাউন্ড ফাঁকা গুলি চালালে উভয় পক্ষ পালিয়ে যায়।

পরে পুলিশ বাদী হয়ে ইউপি চেয়ারম্যান শিপন জোমাদ্দারের ছোট ভাই মো. টিটু জোমাদ্দারকে প্রধান আসামি করে ৪১ জনের বিরুদ্ধে একটি মামলা করেন। শিপন জোমাদ্দার ওই মামলার দুই নম্বর আসামি।

মামলার বাদী ও বরগুনা সদর থানার উপপুলিশ পরিদর্শক মো. হেলাল উদ্দিন বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করে। এ সময় ইমাম হোসেন শিপন সমর্থকেরা তাঁর ভাই টিটুর নেতৃত্বে পুলিশের ওপর হামলার চেষ্টা করে। এ ঘটনায় তিনি বাদী হয়ে গতকাল বুধবার মামলা করেছেন।

বরগুনা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলী আহমেদ বলেন, গ্রেপ্তারকৃত আসামিদের আদালতের মাধ্যমে বিকেলে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

বরগুনার আলো